বুধবার, ১০ অগাস্ট ২০২২, ০২:২১ অপরাহ্ন

বিশিষ্ট শিল্পপতি সিআইপি মুছা মিয়া’র প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী আগামীকাল

বিশিষ্ট শিল্পপতি সিআইপি মুছা মিয়া’র প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী আগামীকাল

কুলিয়ারচর প্রতিনিধি, মোঃ মাইন উদ্দিন : আগামীকাল ১৯ জুন রোববার বিশিষ্ট শিল্পপতি (সিআইপি) মরহুম আলহাজ্ব মোঃ মুছা মিয়া’র প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী। এ উপলক্ষে মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করে কাল রোববার মরহুমের পরিবারের পক্ষ থেকে তাঁর গ্রামের বাড়িতে মিলাদ ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে। সকলের প্রিয় ব্যক্তিত্ব কিশোরগঞ্জ জেলার কুলিয়ারচরের প্রাণপুরুষ, এ উপজেলার উন্নয়নের রুপকার, উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রধান উপদেষ্টা ও কুলিয়ারচর গ্রুপের চেয়্যারম্যান দানবীর সিআইপি আলহাজ্ব মোঃ মুছা মিয়া গত ২০২১ সালের ১৯ জুন শনিবার সকাল ৬ টায় ঢাকার ইউনাইটেড হালপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিলো ৬৮ বছর। মৃত্যুর সময় স্ত্রী মিসেস বুলবুল জয়নব আক্তার, পুত্র কুলিয়ারচর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ইমতিয়াজ বিন মুসা জিসান ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী নাহিয়ান বিন মুসা জেসি, মেয়ে মেহেনাজ তাবাসুম বিনতে মুসা নাবিলা ও নাতি-নতনী সহ অসংখ্য আত্মীয় স্বজন এবং গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। পরদিন ২০ জুন রোববার বাদ জোহর কুলিয়ারচর সরকারি ডিগ্রী কলেজ মাঠে মরহুমের নামাজে জানাজা শেষে পৌর এলাকার পৈলানপুর মহল্লায় পারিবারিক কবরস্থানে তাঁর মরদেহ দাফন করা হয়। তারঁ মৃত্যুতে মহামান্য রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের সড়ক পরিবহণ ও সেতু মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি, কিশোরগঞ্জ-৬ (ভৈরব-কুলিয়ারচর) আসনের সংসদ সদস্য ও বিসিবি সভাপতি আলহাজ্ব নাজমুল হাসান পাপন, কিশোরগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য রেজওয়ান আহমেদ তৌফিক, কুলিয়ারচর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ইয়াছির মিয়া, কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ শরীফুল আলম, উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও বর্তমান উপজেলা বিএনপি’র সভাপতি নূরুল মিল্লাত, পৌরসভার মেয়র সৈয়দ হাসান সারওয়ার মহসিন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য লায়ন মশিউর আহমেদ সহ অনেকেই পৃথক পৃথক ভাবে মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করে শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা ও সহমর্মিতা জ্ঞাপন করেছিলেন। সিআই পি মোঃ মুছা মিয়া কিশোরগঞ্জ জেলার কুলিয়ারচর উপজেলার পৈলানপুর গ্রামে এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতার নাম মরহুম আলহাজ্ব আবুল কাশেম কাঞ্চন মিয়া। মাতার নাম মরহুমা বেগম নুরুন্নাহার। ৪ ভাই কুলিয়ারচর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আবুল হোসেন লিটন, পৌরসভার সাবেক মেয়র মরহুম আবুল হাসান কাজল, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আবুল মনসুর রুবেল ও ৩ বোন মিসেস নাজমা বেগম, মিসেস ইয়াসমিন বেগম, মিসেস রোজী বেগমের মধ্যে তিনি ছিলেন সবার বড়। তিনি একজন সফল মৎস্য ব্যবসায়ী, শিল্পপতি ও বিশিষ্ট সমাজ সেবক ছিলেন।সামাজিক গুণাবলীর অধিকারী ছিলেন মোঃ মুছা মিয়া। তিনি একজন কঠোর পরিশ্রমী ও একজন সৎ, সহজ সরল, সুন্দর চরিত্রের অত্যন্ত নম্র ভদ্র বিনয়ী ও স্নেহ পরায়ণশীল মানুষ ছিলেন। বাংলাদেশ সরকার বাণিজ্যিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের অবদানের স্বীকৃতিস্বরুপ একাধিকবার সি আই পি হিসেবে ঘোষণা করেছিলেন তাঁর নাম।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2021
Design By Rana