মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১১:২৫ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
রাশিয়ায় হামলায় সবচেয়ে বড় ক্ষতির কথা জানালেন জেলেনস্কি হোসেনপুরে আইন-শৃংখলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ বার কাউন্সিল নির্বাচনের প্রচারণায় বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়ার মঙ্গলবাড়িয়ায় ১শ কোটি টাকা লিচু বিক্রির আশা গোপনে জব্দকৃত গাড়ি বিক্রির অভিযোগে তদন্ত কমিটি গঠন কিশোরগঞ্জে শ্রেষ্ঠ ইমামদের বাচাই ও ইমাম সম্মেলন অনুষ্ঠিত কাউন্সিলরের নাম না থাকায় কিশোরগঞ্জে আ’লীগের  বিক্ষোভ মিছিল ভৈরবে বিএনপি দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত ॥ রফিক সভাপতি, আরিফ সম্পাদক হোসেনপুরে পরিদর্শন ও নিরীক্ষা বিষয়ক কর্মশালা কিশোরগঞ্জে বেকার যুবদের আত্ম কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষে বিনামূল্যে আউটসোর্সিং প্রশিক্ষণ শুরু
বাম্পার ফলন ও চড়া দামে ভুট্টাচাষিদের মুখে হাসি

বাম্পার ফলন ও চড়া দামে ভুট্টাচাষিদের মুখে হাসি

স্টাফ রিপোর্টার:

কিশোরগঞ্জের অষ্টগ্রামে শুরু হয়েছে ভুট্টা উত্তোলন। উপজেলার বিভিন্ন মাঠে এখন আগাম জাতের ভ্ট্টুা কর্তন শুরু হয়েছে। মাঠ থেকে ভুট্টা তোলা, কর্তন, মাড়াই ও সংরক্ষণে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে দিন-রাত কাজ করছে এখানকার কৃষকরা। চলতি মৌসুমে উপজেলায় ভুট্টার ব্যাপক চাষ হয়েছে। অনুকূল আবহাওয়ায় ভুট্টার বাম্পার ফলন হওয়ায় ও বাজারে চড়া দাম পাওয়ায় হাসি ফুটেছে এখানকার ভুট্টা চাষিদের মুখে।
উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, চলতি মৌসুমে উপজেলার ৪টি ইউনিয়নে ৭৯০ একর জমিতে ভুট্টা চাষ হয়েছে। হাওরে ভুট্টা চাষ বাড়ানোর জন্য উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর কৃষকদের আগ্রহী করতে প্রতি বছর সার ও বীজ প্রণোদনা দিচ্ছে ও একই সাথে নিয়মিত পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছে।
এবার উপজেলার আদমপুর, কলমা, কাস্তুল ও অষ্টগ্রাম সদর ইউনিয়নে ভুট্টা চাষ বেশি হয়েছে। এবার পরিবেশ অনুকূলে থাকায় একর প্রতি ৯০ থেকে ১০০ মণ ভুট্টা পাওয়া গেছে। বাজারে ভুট্টা সাড়ে ১১০০ টাকায় মণ বিক্রি হচ্ছে। একর প্রতি ৩০ থেকে ৩২ হাজার টাকা খরচ করে লাভবান হচ্ছে ৬৫ থেকে ৭০ হাজার টাকা। যা বোরধানের তুলনায় অনেক বেশি।
স্থানীয় কৃষকদের সঙ্গে কথা বলে জানাযায়, পুষ্টি গুনে সমৃদ্ধ ভুট্টা শুধু মানুষের খাদ্য না, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদের জনপ্রিয় খাবার। ভুট্টার গাছ জ্বালানি হিসাবে ব্যবহৃত হয়। বোরো ধানের তুলনায় ভুট্টা চাষে খরচ কম। তুলনামূলক লাভ হয় ভালো। তাই গত এক দশকে হাওরাঞ্চলে আশানুরূপভাবে বাড়ছে ভুট্টা চাষ। রবিবার (১৭এপ্রিল) সকালে কলমা ইউনিয়নের কাকুরিয়া হাওরে গিয়ে দেখা যায়, ভুট্টা চাষি শ্রীনিবাস ও তাঁর পরিবারে ৫ সদস্য মাড়াই করা ভুট্টা রোদে শুকাচ্ছে।
এ সময় শ্রীনিবাস দাস বলেন, ‘এবার ৭একর জমি পত্তন নিয়ে ভুট্টার চাষ করি। ভালো ফলন হয়েছে। বাজারে দাম ভালো থাকলে লাভ হবে যথেষ্ট। ভবিষ্যতে আরও বেশি করে ভুট্টা চাষ করব। সরকারিভাবে আমাকে মাড়াইকল দিলে খরচ আরও কমতো।’
উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোহাম্মদ শহীদুল ইসলাম ‘সংবাদ সারাবেলা’ পত্রিকাকে বলেন, ‘আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় ভুট্টার বাম্পার ফলন হয়েছে এবার, আশানুরূপ দাম পাওয়ায় কৃষকেরা খুশি। আমরা বিনা মূল্যে ভুট্টা মাড়াই যন্ত্রসহ নানা রকম প্রণোদনা দিয়ে আসছি। এতে কৃষকেরা বেশি আগ্রহী হবে ভুট্টা চাষে।’ আসা করি চলতি বছরের চেয়ে আগামীতে ফলন আরো বাড়বে।

 

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2021
Design By Rana