বুধবার, ১০ অগাস্ট ২০২২, ০৩:০৫ অপরাহ্ন

দক্ষিণ আফ্রিকায় আম্পায়ারিং নিয়ে বিসিবির অভিযোগ

দক্ষিণ আফ্রিকায় আম্পায়ারিং নিয়ে বিসিবির অভিযোগ

একুশে ডেস্ক:
বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড দক্ষিণ আফ্রিকার আম্পায়ারিং নিয়ে অভিযোগ তুলেছে। দক্ষিণ আফ্রিকার সাথে চলমান সিরিজের পর কিংসমিডে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলে (আইসিসি) আম্পায়ারিং আনুষ্ঠানিক অভিযোগ জানাবে বিসিবি।
দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের উদ্বোধনী ম্যাচে বেশ কিছু সিদ্ধান্ত বাংলাদেশের বিপক্ষে যায়। অধিনায়ক মুমিনুল হক খেলা শেষে অভিযোগ করেণ গুরুতর স্লেজিংয়ের স্বীকার হয়েছিলেন তারা। বাংলাদেশ দলের খেলোয়াড় এবং বিসিবি কর্মকর্তাদের মতে অ্যাড্রিয়ান থমাস হোল্ডস্টক এবং মারাইস ইরাসমাসের আম্পায়ারিংয়ে পেশাদারিত্বের পরিচয় দেননি।
সোমবার (৪ এপ্রিল) বিসিবি ক্রিকেট অপারেশন চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস ক্রিকবাজকে বলেন, ‘আমরা সিরিজের পর আম্পায়ারিং নিয়ে আইসিসির কাছে আনুষ্ঠানিক অভিযোগ জানাব। আমরা ইতিমধ্যেই ওডিআই সিরিজের পরে আম্পায়ারিং সম্পর্কে একটি অভিযোগ দায়ের করেছি। আমরা ম্যাচ রেফারি অ্যান্ডি পাইক্রফটের কাছে অভিযোগ করেছি। কিন্তু তিনি অভিযোগ কাণে নেননি।
‘আম্পায়ারের পক্ষপাতিত্ব বিশ্বব্যাপী সকলেই দেখেছে। তবুও আমরা কিছু করতে পারিনি কারণ তারাই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন। কিন্তু পোর্ট এলিজাবেথ টেস্ট শেষ হবার পরে আমরা আইসিসির কাছে আনুষ্ঠানিক ভাবে অভিযোগ তুলে  ধরবো। মুমিনুল স্লেজিং নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছিল।আম্পায়ারদের দুই দলকেই নিরপেক্ষভাবে স্লেজিং সম্পর্কে বলা উচিত ছিল। কিন্তু তারা শুধু আমাদের ক্রিকেটারদের সতর্ক করে।’
জালাল ইউনুস আরও জানান, তারা বেশ হতাশ হয়েছিলেন। তারা আশা করেছিলেন আম্পায়াররা তাদের এক্সট্রা টাইম দিবে। কারণ প্রথম দিনে সাইটস্ক্রিন সমস্যার কারণে টেস্ট শুরু হতে আধা ঘন্টা দেরি হয়।
‘এই আধা ঘণ্টা পূরণ করার জন্য তারা দ্রুত খেলা শুরু করার পরিবর্তে মধ্যাহ্নভোজের সেশন বাড়ায়। যা আমরা সাধারণত দেখি, ‘তিনি বলেছিলেন, এটা নিঃসন্দেহে আম্পায়ারদের গাফিলতি। খেলা আগে শুরু করে তারা নষ্ট হওয়া সময় পূরণ করতে পারতেন। কিন্তু সেটা তারা করেননি। তারা আসলে চায়নি আমাদের পেস বোলাররা আক্রমণে যাক।
চতুর্থ দিনের খেলা শেষে মাহমুদ নিরপেক্ষ আম্পায়ারদের দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানান এবং জালালও একই বক্তব্য দেন। তিনি বলেন, ‘আমি মনে করি আমাদের নিরপেক্ষ আম্পায়ার থাকা উচিত।’
উভয় বোর্ডের দ্বারা স্বাক্ষরিত এমওইউ অনুসারে, যদি একটি ম্যাচ বিলম্বিত হয় তবে এটি বিকেলে খেলে এবং তাড়াতাড়ি শুরু না করে ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2021
Design By Rana